আমরা ‘করোনা’ বলছি!

আদিল মাহমুদ | পাঠক কলাম
প্রকাশিত: বুধবার, ২২ এপ্রিল ২০২০ | ০২:০৩:৫৮ পিএম
আমরা ‘করোনা’ বলছি!
আমরা স্রষ্টার অতি ভয়ঙ্কর সৃষ্টি, আমরা অতি ক্ষুদ্র ক্ষমতাধর করোনা এই পৃথিবীতে এসেছি, তাতেই তোমাদের এতো দুরঅবস্থা! ভেবে দেখো মানুষের ক্ষমতার সীমাবদ্ধতা। মানবজাতি সৃষ্টিকর্তার মহা সৃষ্টি, তাই তো এখনো বাঁচিয়ে রেখেছি, তোমরা নিজেদেরকে মারার কাজে ব্যস্ত।

তাই, আমাদের প্রতিহতে আজ তোমরা অপদস্থ। আমরা ভীষণ অপ্রতিরোধ্য, ভয় করি শুধু সৃষ্টিকর্তা আর চিকিৎসা শাস্ত্র, জানি তোমরা চিকিৎসার রাশ টেনে রেখেছ। অথচ মানবজাতির অকল্যাণে অর্থ ব্যয় করছ। মনে রেখ আমরা অদৃশ্য ক্ষমতাধর মহাশক্তি, ক্ষতি করতে পারবে না তোমাদের মতো শক্তি, চিন্তা মোদের বিন্দুমাত্রও নাই, ভীত হই শুধু ডাক্তার নার্সদের মনোবল ও দৃঢ়তায়।

মরণব্যধীকে রুখতে পারে শুধু সৃষ্টিকর্তা, প্রতিষেধক শাস্ত্র তাঁরই সৃষ্টি করা চিকিৎসা। তাই তাদের হাত শক্ত করে ধর, আমাদের মতো কোভিড-১৯ কে প্রতিহত কর। ডাক্তার, আর্মি, পুলিশ, গোয়েন্দা এবং প্রশাসন, আমাদেরকে মারার জন্য আজ করেছে পণ, তবে ভয় করিনা কাউকে মোরা, শুধু সৃষ্টিকর্তা আর ডাক্তার-নার্স ছাড়া।

হাত ধোয়া, মাস্ক, লকডাউন ও সামাজিক দূরত্ব, আমাদের পথের সাময়িক কাঁটা মাত্র, পুরোপুরি যদি নিষ্ক্রিয় করতে চাও, ডাক্তার-নার্স এবং হু এর শক্তি ও সামর্থ্য বাড়াও। চোখ, নাক, মুখ ও ফুসফুস আমাদের লক্ষ্যস্থল, যেমনি খুনোখুনি ও মারণাস্ত্র তোমাদের সম্বল, কিন্তু মারণাস্ত্রকে আমরা ভয় করিনা। কারণ চিকিৎসা শাস্ত্রে বিপ্লব তোমরা চাও না। আর্মি, পুলিশ, আনসার, সাংবাদিক ও ব্যাংকার, সবাই আজ ক্লান্ত, মোদের মারতে ধরেছে হাতিয়ার। কিন্তু ভাই, করোনা তোমাদের চেয়ে বেশি ক্ষুরধার, রুখতে পারবে মোদের বিজ্ঞানী, নার্স আর ডাক্তার।

হু, তিন বাহিনী, বিজিবি, পুলিশ, ডাক্তার ও প্রশাসন, আমাদের প্রধান উদ্বেগের কারণ, দিতে চাইবে না তারা আমাদের কে ঠাই, তাই তো তাদেরকে পালা করে মারতে চাই। আপাততঃ সামাজিক দূরত্ব মেনে চলো স্বার্থব্যতীরেখে সরকারকে যথার্থ সহায়তা করো, নিজেদের মধ্যে ভেদাভেদ ভুলে হিংসা ভুলে যাও, চিকিৎসা শাস্ত্রে অর্থ বরাদ্দ লক্ষগুন বাড়িয়ে দাও। তোমরা মানব বিদ্বেষে ভরা জাতি, যুদ্ধ বিগ্রহ, ক্ষমতার অপব্যবহার তোমার সাথী পৃথিবীতে অত্যাচার রাহাজানি যখন উঠে যাবে, ভাইরাস তখন চিরতরে তোমাদেরকে মুক্তি দিবে।

লেখকঃ ইন্সপেক্টর (তদন্ত)
পরশুরাম মডেল থানা, ফেনী।


পাঠক কলামের কোন লেখার বিষয়ে পত্রিকা কর্তৃপক্ষ কোন দায় নিবে না। লেখক তার নিজের লেখার জন্য সম্পূর্ণ দায়ভার গ্রহণ করবেন।

খবরটি গুরুত্বপূর্ণ মনে হলে পেজে লাইক দিয়ে সাথে থাকুন