পুত্রের প্রতি পিতার খোলা চিঠি: `বাবা মেধাবী হয়ে লাভ নাই, যদি না মানুষ হতে পার'

মোঃ শহীদুল্লাহ | পাঠক কলাম
প্রকাশিত: রবিবার, ১৩ অক্টোবর ২০১৯ | ১০:৪০:৩০ এএম
পুত্রের প্রতি পিতার খোলা চিঠি: `বাবা মেধাবী হয়ে লাভ নাই, যদি না মানুষ হতে পার'
`বাবা মেধাবী হয়ে লাভ নাই, যদি না মানুষ হতে পার'

স্নেহের ইমরান

মা-বাবার অশেষ দোয়া রইল। আশা রাখি পড়া লেখার পাশাপাশি পার্টটাইম সার্ভিসের ডিউটি নিয়ে খুব ব্যস্ত  আছ। আজ তোমার মা আর আমার বিবাহ বার্ষিকী উপলক্ষে তোমার ওয়ালে একটি পোস্ট দিয়েছ তা দেখেছি। পোস্টটি কয়েক বার পড়েছি। জানিনা নিজের অজান্তে অশ্রু যোগলে আনন্দাশ্রুপাত হয়ে গেল।

আজ আমাদের ২২তম বিবাহ বার্ষিকীতে তোমার দেওয়া পোস্টটি এক অন্যরকম ভালবাসার অনুভূতি জাগিয়েছে। এই অনুভূতি জাগার সাথে সাথে মহান আল্লাহর দরবারে শুকরিয়া আদায় করে বলেছি আলহামদুলিল্লাহ।

তোমার ফেসবুক ওয়ালে যে স্ট্যাটাসটি পোস্ট করেছ তার মাঝে খুঁজে পাওয়া আনন্দের অনুভূতি মাপার ওজন যন্ত্র আমার জানামতে পৃথিবীতে এখনো আবিষ্কার হয়নি। পৃথিবীর কোন ভাষাতেও এই অনুভূতির কথা ভাষায় প্রকাশ করে শেষ করা যাবেনা।

ইমরান আমরা তোমার পিতা মাতা হিসাবে এতদিন শুধু পড়া লেখা করে ভাল রেজাল্ট করে মেধাবী হবার কথা বলেছি। আজ আমরা পিতা-মাতা হয়ে তোমাকে আদেশ করছি ভাল রেজাল্টের চাইতে তোমাকে ভাল মানুষ হয়ে গড়ে উঠতে হবে। তুমি যদি ভাল মানুষ হয়ে নিজেকে তৈরী করতে পার মা বাবা হিসাবে আমরাই বেশী খুশী হব। তুমি যদি মানুষের মত মানুষ হতে পার তাতেই আমাদের স্বার্থকতা।

তোমাকে চলমান শিক্ষা পদ্ধতির মেধাবী নামের মনুষ্যত্বহীন শিক্ষায় উচ্চ শিক্ষিত হতে হবেনা। ইঞ্জিনিয়ার, ডাক্তার, বিজ্ঞানী অথবা সরকারি বড় কোন কর্মকর্তা কর্মচারী হতে হবে না। বড় ব্যবসায়ী হয়ে অঢেল অর্থ সম্পদের মালিক হয়ে ধনী হতে হবে না। বড় কোন রাজনৈতিক দলের নেতাও হতে হবেনা। তোমাকে শুধু মহান আল্লাহ ঘোষিত শ্রেষ্ঠ মানুষই হতে হবে।

তুমি যদি মানুষ হতে না পার বড় বড় ডাক্তার, ইঞ্জিনিয়ার, বিজ্ঞানী, ধনী হয়ে কোন লাভ নাই। কেননা বড় বড় ডাক্তাররা ডাক্তার হতে পেরেছেন মানুষ হতে পারেননি। যদি তারা মানুষ হতেন টাকার অভাবে একজন মানুষ বিনা চিকিৎসায় মারা যেতনা। চিকিৎসার নামে অসহায় মানুষদের জিম্মি করে ব্যবসা করতে পারতেন না। এরা মেধাবী হয়ে বড় ডাক্তার হতে পেরেছেন মানুষ হতে পারেননি।  

এই বড়ত্ব দিয়ে ক্ষনিকের জগত দুনিয়ায় শুধুমাত্র আরাম আয়েশ করা যায়। এই দুনিয়ার পরে অফুরন্ত সময়ের যে আরেকটি জগত আছে সেই জগতে এই বড়ত্বের কোন মূল্য নেই বাবা। সেই জগতে শুধুমাত্র ভাল মানুষেরই মূল্য আছে। আমরা চাই তুমি ভাল মানুষ হও।

প্রিয় ইমরান,
এই দুনিয়া থেকে মৃত্যু পরবর্তী জগতে শান্তিময় জীবন লাভের সমস্ত সরঞ্জাম নিয়ে যেতে হয়। মহান আল্লাহ ঘোষিত শ্রেষ্ঠ জীব মানুষ হতে পারলেই এই মূল্যবান  সরঞ্জাম তুমি অর্জন করতে পারবে। যে সরঞ্জাম তোমার কবরে এনে দেবে এক স্বর্গীয় শান্তি । এই সরঞ্জাম অর্জন করতে চাইলে তোমাকে মহান আল্লাহ সুবহানাহু তাআ'লা যে রকম মানুষ হতে বলেছেন, সে রকম মানুষই হতে হবে। সেই মানুষ হতে পারলেই তুমি সফল শ্রেষ্ঠ জীবন লাভ করতে পারবে।

প্রিয় ইমরান,
কেন আমি তোমাকে চলমান আদর্শহীন মেধাবী নামের উচ্চ শিক্ষিত মেধাবী হতে নিষেধ করছি জান বাবা?

চলমান শিক্ষিতরা শুধুমাত্র মেধাবী হতে শিখেছে তারা পাশাপাশি মানুষ হতে শিখেনি। তারা যদি মেধাবীর পাশাপাশি মানুষ হতে শিখত, তাহলে দেশের সর্বোচ্চ মেধাবী তৈরীর কারখানা বাংলাদেশ প্রকৌশল বিশ্ববিদ্যালয়ের(বুয়েট) ছাত্র আবরার ফাহাদকে নির্মম নির্যাতনের মাধ্যমে হত্যা করতে পারতনা।

দেশের প্রতিটি নামকরা নিন্ম থেকে উচ্চ স্তরের মেধাবী তৈরীর শিক্ষালয় নামের যে কারখানা গুলো রয়েছে। সেই কারখানা গুলোতে শিক্ষক নামের যে কারিগররা আছেন তারা শুধু আবরার হত্যাকারীদের মত ঝাঁকে ঝাঁকে মেধাবী তৈরী করেছেন। সেই মেধাবীদের মেধাবী হিসাবে তৈরী করতে, শিক্ষকদের পাশাপাশি আমরা মা বাবারাও সন্তানদের প্রবল চাপ দিয়েছি এবং এখনো চাপ দিচ্ছি।

ফলে আজকের বুয়েট পড়ুয়া মেধাবী ছাত্র নামের খুনী সন্তানই পেয়েছি। মনুষ্যত্ব শিখা মানব সন্তান আমরা পায়নি। বুয়েটের ছাত্র আবরার ফাহাদকে হত্যাকারী মেধাবীরা হল, তাদের পিতা-মাতা ও শিক্ষকদের কঠোর পরিশ্রমে পাওয়া মেধাবী নামের একেকটি বিষাক্ত ফসল। আমরা সেই মেধাবী নামের বিষাক্ত ফসলের পিতা মাতারা সর্বদা চাপ দিয়েছি পড়া লেখার মাধ্যমে ভাল রেজাল্ট করে এই মেধাবী খেতাব অর্জন করতে দিনরাত শুধু চেষ্টায় করেছি। মেধাবী খেতাব অর্জনের পাশাপাশি মানুষ হওয়ার শিক্ষা মনুষ্যত্ব অর্জনের শিক্ষা নিতে চাপ দিতে পারিনি বলে আবরারদের বার বার খুন হতে হয়।

এই মেধাবী খেতাব অর্জনে প্রাথমিক থেকে  বুয়েটে ভর্তি হওয়ার আগ পর্যন্ত সময়ে শিক্ষকদের চাইতেও বেশী প্রচেষ্টা আমরা পিতা মাতারাই করেছি করি এবং ভবিষ্যতে করতেই থাকব। কিন্ত আমরা আমাদের সন্তানদের মানুষ হওয়ার আসল শিক্ষা মনুষ্যত্ব শিক্ষা দিতে পারিনি। এই ব্যর্থতার দায়ভার শিক্ষকদের চাইতে আমরা পিতা মাতার উপরই বেশী বর্তায়। কারণ মানুষ হবার শিক্ষা সন্তানেরা পিতা মাতার কাছ থেকেই বেশী পায়।  

আমরা পিতা মাতাদের উচিত ছিল, শুরু থেকে আমাদের সন্তানদের শুধুমাত্র মুখস্থ বিদ্যা নির্ভর শিক্ষায় মেধাবী নামের শিক্ষিত না করে। সেই মেধাবী সন্তানদের সাধারণ শিক্ষার পাশাপাশি মনুষ্যত্ব অর্জনের শিক্ষা প্রদানের সর্বশেষ প্রচেষ্টা অব্যাহত রাখা প্রয়োজন ছিল। সেই সাধারণ শিক্ষায় শিক্ষিত মেধাবীদের মনুষ্যত্ব শিখিয়ে মানুষ করতে না পারায় আবরারকে হত্যা করে তারা যেমন নিজেদের ভবিষ্যত জীবনকে ধ্বংস করে দিয়েছে।

তেমনি তাদের পিতা মাতা সহ পরিবারের অন্যান্য সদস্যদের জীবনও চরম বিপর্যয়ের দিকে ঠেলে দিয়েছে সেই মেধাবীরা। নিমিষেই যেন একটি সোনালী স্বপ্ন দেখা সুখী পরিবারের স্বপ্ন গুলো ভেঙে চুরমার করে সব কিছু উলটপালট হয়ে গেছে।  

সে রকম মেধাবী সন্তান বাবা, আমাদের প্রয়োজন নেই। মহান আল্লাহর কাছে প্রার্থনা করে বলি, `হে আল্লাহ আমাদের সন্তানদের আবরারের খুনীদের মত মেধাবী নামের অমানুষ করনা। হে রহমানুর রহিম তুমি যে শিক্ষার মাধ্যমে আদম সন্তানদের মানুষ হতে বলেছ, আমাদের ৩ ছেলে ১ মেয়ে সন্তানকে সেই শিক্ষা দান করে মানুষ হিসাবে গড়ে উঠার তৌফিক দান করুন। বাবা ইমরান তোমার কাছে এরকমই আমাদের চাওয়া।'

জীবনে যেদিন তুমি নিজেকে এবং তোমার পাশাপাশি তোমার ছোট ভাই বোনদেরকে আল্লাহ নির্দেশিত মানুষ হবার শিক্ষার মাধ্যমে মানুষ  হিসাবে গড়ে তুলতে পারবে। সেদিনই আমরা মরেও কবরে শান্তিতে থাকতে পারবো। তুমি আমাদের বড় সন্তান হিসাবে তোমার প্রতি আমাদের আদেশ- নির্দেশ বা পরামর্শ রইল, আগে তোমাকে মানুষ হতে হবে। পাশাপাশি তোমার ছোট ভাই বোনদের মানুষ হিসাবে গড়ে তুলতে হবে।

একটি কথা মনে রাখবে মুসলমানের ছেলে হিসাবে তোমাকে মুসলমান হয়েই মরতে হবে। মুসলমান তখনই হতে পারবে যখন তুমি আল্লাহ ঘোষিত সৃষ্টির সেরা জীব মানুষ হতে পারবে। মানুষ হতে হলে মনুষ্যত্ব অর্জন করতে হয়। মনুষ্যত্ব বিহীন মানুষ হওয়া মানে মানুষ নামের আকৃতি নিয়ে জানোয়ারের চেয়ে নিকৃষ্ট প্রাণী হওয়া এক কথা।

পরিশেষে বলি তুমি যদি মানব সন্তান হয়ে জন্ম নিয়ে থাক তোমাকে মনুষ্যত্ব অর্জন করে মানুষ হয়েই মৃত্যু বরণ করতে হবে। তার পরেই লাভ করতে পারবে তোমার জীবনের শ্রেষ্ঠ সফলতা। সুতরাং বাবা, শুধুমাত্র মেধাবী হয়ে লাভ নেই, পাশাপাশি যদি তুমি মানুষ হতে না পার।

হে আল্লাহ আমার সন্তান সন্ততিদের মনুষ্যত্ব অর্জনের শিক্ষা দান করে মানুষ হবার তৌফিক দান করুন আমিন। আল্লাহ হাফিজ।

ইতিঃ
তোমারই শঙ্কিত পিতা
মোঃ শহীদুল্লাহ।
তারিখঃ- ১২/১০/২০১৯ ইংরেজি।

খবরটি গুরুত্বপূর্ণ মনে হলে পেজে লাইক দিয়ে সাথে থাকুন