বুধবার, ৩০ নভেম্বর ২০২২ , ১৬ অগ্রহায়ণ ১৪২৯
আপডেট: ৩০ নভেম্বর ২০২২

একটি হুইল চেয়ারের আকুতি

৬ এপ্রিল ২০২২ - দুপুর ১২:০৬
...
কিশোরগঞ্জের হোসেনপুরে প্রতিবন্ধী রমজানের বালতিতে বসে দিন কাটে। জন্ম নিবন্ধন অনুযায়ী তার বয়স ৪ বছর ১১ মাস। তার সমবয়সী অন্য সব শিশুরা দৌড়-ঝাপ করে খেলাধুলায় মত্ত। সে বয়সে রমজানের দিন কাটে বালতিতে বসে।

প্রতিবন্ধী হয়ে জন্ম নেওয়ার কারণে জন্মের পর থেকে হাঁটতে পারছে না রমজান। যেজন্য মা-বাবা কাজের ফাঁকে কোলে করে ঘোরাফেরা করলেও কাজের সময় তাকে একটি হুইল চেয়ারের অভাবে বালতিতে বসিয়ে রেখে তাদের কাজ করতে হয়।

রমজান উপজেলার আড়াইবাড়িয়া ইউনিয়নের ১নং ওয়ার্ডের ধুলজুরী গ্রামের দুদু মিয়া ও জেসমিন দম্পতির সন্তান।

সরেজমিনে গিয়ে কথা বলে জানা যায়, এই দম্পতির ঘরে চার বছর আগে জন্ম নেয় একটি পুত্র সন্তান। আদর করে তার নাম রাখা হয় রমজান। সে জন্মের পর থেকেই বাবা-মার কোলে করে বড় হয়ে উঠে।

জন্মের পর থেকেই ছেলেটি প্রতিবন্ধী হওয়ায় বাবা-মা দৌড়-ঝাপ পাড়ছেন এদিক-ওদিক। এক কক্ষ বিশিষ্ট মাটির ঘরে বসবাস করা দুদু মিয়া সংসারের ঘানি টানতে ভাড়া করা ব্যাটারি চালিত অটোরিকশা চালিয়ে কোন রকম দিনাতিপাত করলেও একটি হুইল চেয়ার কেনার মত সামর্থ্য তার নেই।

এ কারণে চেয়ারম্যান-মেম্বারদের দ্বারে ঘুরে একটি হুইল চেয়ার না পেয়ে নিরাশ হয়ে অগত্যা সাংবাদিকদের মাধ্যমে রমজানের মা জেসমিন আক্তার আকুতি জানিয়েছেন, অন্তত একটি হুইল চেয়ার থাকলে কিছুটা হলেও স্বস্তি পাওয়া যেত।

জাতীয় শিশু সেবা ১০৯৮ নাম্বারে ফোন করলে নাজনিন আফরোজ নামের কর্মকর্তা জানান, নিয়ম অনুযায়ী ৬ বছর বয়স হলে সে প্রতিবন্ধী ভাতার আওতায় আসবে। আর একটি হুইল চেয়ারের জন্য কর্তৃপক্ষের সাথে কথা বলে ব্যবস্থা করার আশ্বাস দেন।

শামীম সরকার/এনপি

পড়া হয়েছে: ১৩২৯ বার
আমাদের ইউটিউব চ্যানেলে সাবস্ক্রাইব করুন
আরো পোস্ট