বোনকে উত্ত্যক্তের প্রতিবাদ করায় ভাইকে কুপিয়ে হত্যা

রেদওয়ানুল হক মিলন, ঠাকুরগাঁও প্রতিনিধি | সারাদেশ
প্রকাশিত: সোমবার, ৪ মে ২০২০ | ০৬:১৬:৫২ পিএম
বোনকে উত্ত্যক্তের প্রতিবাদ করায় ভাইকে কুপিয়ে হত্যা
ঠাকুরগাঁওয়ে বড় বোনকে উত্ত্যক্তের প্রতিবাদ করায় রাসেল (১৪) নামে এক স্কুলছাত্রকে কুপিয়ে হত্যা করেছে কয়েকজন সন্ত্রাসী। রাসেল সদর উপজেলার বেগুনবাড়ি ইউনিয়নের পশ্চিম ভোপলা গ্রামের সাদেকুল ইসলামে ছেলে।

ঘটনার পর পুলিশ সাত জনকে গ্রেফতার করেছে। গ্রেফতাররা হলেন- সদর উপজেলার বেগুনবাড়ি ইউনিয়নের মধ্য ভোপলা গ্রামের হেলাল ইসলাম ওরফে নাপিত (২২), পশ্চিম ভোপলা গ্রামের নাঈম ইসলাম নাসির (১৯), কুদ্দুস আলী ওরফে সুন্দর (১৭), বোচাপুকুর গ্রামের রতন ইসলাম (১৭), সোহেল ইসলাম (২২), উত্তর বোচাপুকুর গ্রামের আল আমিন ইসলাম শাহিন (২০), বোচাপুকুর বিশুরদিঘী গ্রামের সামিউল ইসলাম (২৬)।

গ্রেফতাররকৃতদের স্বীকারোক্তি অনুযায়ী ঘটনাস্থলের পাশ থেকে হত্যাকান্ডে ব্যবহৃত চাপাতি ও ক্ষুর উদ্ধার করা হয়েছে।

এ ব্যপারে রোববার বিকেলে এক সংবাদ সম্মেলনে পুলিশ সুপার মনিরুজ্জামান জানান, গ্রেফতারকৃতরা ওই ইউনিয়নের পশ্চিম ভোপলা গ্রামের এক কলেজ পড়–য়া ছাত্রীকে প্রায় সময় উত্ত্যক্ত করত। এর প্রতিবাদ করে ঐ ছাত্রীর ৮ম শ্রেণিতে পড়ুয়া ছোট ভাই রাসেল। এতে ক্ষিপ্ত হয়ে উত্ত্যক্ত কারিরা রাসেলকে দেখে নেওয়ার হুমকি দেয়।

গত ২৪ এপ্রিল সন্ধ্যার পর তারা কৌশলে ওই স্কুলছাত্রকে বাড়ির পাশে ঈদগাহ মাঠে নিয়ে যায়। সেখানে ধারালো অস্ত্র দিয়ে তাকে কুপিয়ে ও গলা কেটে হত্যা করে লাশ পাশের ধান ক্ষেতে ফেলে চলে যায়।

খবর পেয়ে পুলিশ লাশ উদ্ধার করে ময়নাতদন্তের জন্য ঠাকুরগাঁও আধুনিক সদর হাসপাতাল মর্গে পাঠায়। ওই দিনই নিহতের বড়ভাই রাজু আহমেদ অজ্ঞাতনামাদের আসামি করে ঠাকুরগাঁও সদর থানায় একটি হত্যা মামলা দায়ের করেন।

গ্রেফতারকৃত সাত জনের মধ্যে তিন জন ১৬৪ ধারায় জবানবন্দি দিয়ে হত্যাকান্ডে জড়িত থাকার কথা স্বীকার করেছেন বলে জানান মামলার তদন্তকারি কর্মকর্তা এসআই চন্দন কুমার।

বাংলাপত্রিকা/এসএ

খবরটি গুরুত্বপূর্ণ মনে হলে পেজে লাইক দিয়ে সাথে থাকুন