দাবি না মানলে কঠোর আন্দোলনের হুশিয়ারি

জহুরুল ইসলাম, যবিপ্রবি প্রতিনিধি | শিক্ষা ও ক্যাম্পাস
প্রকাশিত: মঙ্গলবার, ১৪ জানুয়ারী ২০২০ | ০৮:১৫:৪৭ পিএম
দাবি না মানলে কঠোর আন্দোলনের হুশিয়ারি
নিরাপদ সড়কের দাবিতে যশোর বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয়ের শিক্ষার্থীরা গতকাল বিশ্ববিদ্যালয়ের সামনের সড়কে মানবন্ধনের পর মঙ্গলবার যশোর সড়ক ও জনপথ কার্যালয়ের সামনে মানববন্ধন করে। আন্দোলনরত শিক্ষার্থীদের সকল দাবী মেনে নিয়ে দ্রুত বাস্তবায়নের আশ্বাস দেন সংস্লিষ্ট কর্তৃপক্ষের পক্ষ থেকে সহকারী প্রকৌশলী শহিদুল ইসলাম। পরে আন্দোলনকারীরা, দুই দিনের মধ্যে দাবি না মানা হলে কঠোর আন্দোলনে যাবেন বলে হুশিয়ার করেন।

আন্দোলনরত শিক্ষার্থীদের মাঝে উপস্থিত থেকে যশোর বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয় শিক্ষক সমিতির সাধারণ সম্পাদক ড. ইঞ্জি. মোঃ আমজাদ হোসেন বলেন, শিক্ষার্থীদের নিরাপদ সড়ক আন্দোলনের সাথে বিশ্ববিদ্যালয়ের প্রশাসন, শিক্ষক সমিতি, কর্মকর্তা, কর্মচারী সমিতি একাত্মতা প্রকাশ করেছে।

সড়ক ও জনপথ বিভাগ আমাদের দাবী গুলো মেনে নিয়েছে, তারা বলেছে ২ দিন সময় দিতে আমরা সময় দিচ্ছি যদি সঠিক সময়ে কাজ শুরু না হয় তাহলে আমরা কঠোর আন্দোলনে যাবো।

এ সময় আরও বক্তব্য রাখেন যশোর বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয় শিক্ষক সমিতির সহ-সভাপতি ড. সাইবুর রহমান মোল্যা, প্রধান প্রকৌশলী ও কর্মকর্তা সমিতির সভাপতি ইঞ্জিনিয়ার হেলাল উদ্দিন পাটোয়ারী, জনসংযোগ কর্মকর্তা আব্দুর রশিদ অর্নব, কর্মচারী সমিতির সভাপতি সাজেদুর রহমান জুয়েল, সাধারণ সম্পাদক সোহাগ হোসেন, শাখা ছাত্রলীগের সাবেক সাংগঠনিক সম্পাদক আফিকুর রহমান অয়ন, শহীদ মশিয়ুর রহমান হলের যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক সোহেল রানা, পরিবেশ বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি বিভাগের শিক্ষার্থী সজিবুর রহমান ও নাজনীন সুলতানা, ইলেকট্রিক্যাল এন্ড ইলেকট্রনিক ইঞ্জিনিয়ারিং বিভাগের শিক্ষার্থী মেহেদী হাসান সহ বিভিন্ন বিভাগের শিক্ষার্থীরা।

এগ্রো প্রোডাক্ট প্রসেসিং টেকনোলজি বিভাগের শিক্ষার্থী নাজমুল হাসান বলেন, বিশ্ববিদ্যালয় প্রশাসন বারবার যশোর সড়ক ও জনপথ বিভাগকে অবহিত করার পরও তারা অবহেলা করেছে। এর আগে নিরাপদ সড়কের জন্য আমরা ৩ জন মেধাবী শিক্ষার্থীকে হারিয়েছি, গতকাল একজন দূর্ঘটনার শিকার হয়েছে। যদি আার একজনের রক্ত ঝরে তাহলে রাজপথে নেমে আসবে শিক্ষার্থীরা। প্রতি ফোটা রক্তের হিসাব নেয়া হবে সড়ক ও জনপথ বিভাগের কাছ থেকে।

উল্লেখ্য, যবিপ্রবির প্রধান ফটকের সামনে অনেকদিন ধরেই গতিরোধক তৈরির দাবি জানিয়ে আসছে সাধারণ শিক্ষার্থীরা। তাদের দাবী, সড়ক বিভাগকে গতিরোধক তৈরির চিঠি দিলেও এখনো তা বাস্তবায়ন হয়নি। এরই মধ্যে কয়েকটি ছোটখাট দুর্ঘটনা হলেও গত রবিবার রাতে রাস্তার পাশ দিয়ে হেটে যাওয়া এক শিক্ষার্থীকে ধাক্কা দেয় নিয়ন্ত্রনহীন এক মোটর সাইকেল আরোহী।

উক্ত দুর্ঘটনায় ওই শিক্ষার্থী গুরুতর আহত না হলেও তার শরীরের বিভিন্ন জায়গায় কেটে গিয়েছে। এর প্রেক্ষিতে সোমবার প্রধান ফটকের সামনে সড়ক অবরোধ ও মঙ্গলবার যশোর সড়ক ও জনপথ কার্যালয়ের সামনে মানববন্ধন করে যবিপ্রবির সাধারণ শিক্ষার্থীরা।

বাংলাপত্রিকা/আরইউ

খবরটি গুরুত্বপূর্ণ মনে হলে পেজে লাইক দিয়ে সাথে থাকুন