‘ও আমার স্কার্টের ভেতর হাত দিয়েছিল’

বাংলা পত্রিকা ডেস্ক | বিনোদন
প্রকাশিত: মঙ্গলবার, ১৫ অক্টোবর ২০১৯ | ১২:১২:০৮ পিএম
‘ও আমার স্কার্টের ভেতর হাত দিয়েছিল’
বিশ্বের সবচেয়ে বড় ফিল্ম ইন্ডাস্ট্রি হলিউডে যৌন হেনস্তার খবর নতুন কিছু নয়। ২০১৭ সালের এপ্রিলে প্রযোজক হার্ভে ওয়েনস্টিনের বিরুদ্ধে একাধিক অভিনেত্রী যৌন হেনস্তা ও ধর্ষণের অভিযোগ আনার পর এই বিষয়টা নিয়ে পুরো বিশ্বে তোলপাড় শুরু হয়ে যায়। শুরু হয় #মিটু আন্দোলন। পরবর্তীতে সেই আন্দোলনের বাতাস লাগে বলিউড, টলিউড এবং ঢালিউডেও।

সেই #মিটু ব্যবহার করে এবার যৌন হেনস্তার আরও এক গল্প সামনে আনলেন হলিউড অভিনেত্রী নওমি হ্যারিস। অস্কার পুরস্কারের নমিনেশন পাওয়া এই অভিনেত্রীর দাবি, একবার অডিশন দিতে গিয়ে একজন বড় মাপের তারকা তার শরীরে ও গোপনাঙ্গে অশ্লীল ভাবে ছুঁয়েছিল। এই ঘটনা যখন ঘটে, নওমি তখন ২০ বছরের যুবতী।

অভিনেত্রীর কথায়, ‘আমি অডিশন দিতে গিয়েছিলাম। ওই সুপারস্টার আমার স্কার্টের ভেতর হাত দিয়েছিল। অদ্ভুত ব্যাপার হল, সেখানে পরিচালক, কাস্টিং ডিরেক্টর সবাই উপস্থিত ছিলেন। কিন্তু কেউ কিচ্ছুই বলেননি। কারণ ওই ব্যক্তি এতটাই বড় মাপের তারকা ছিলেন যে, তাকে কিছু বলার ক্ষমতা পরিচালকদের ছিল না।’

সেই দিনের সেই নোংরা অভিজ্ঞতার কথা নওমি আজও ভুলতে পারেননি। অভিনেত্রীর বর্তমান বয়স ৪৩ বছর। এই বয়সে দাঁড়িয়েও সেই দিনটা তাকে নাড়া দেয়।

তবে শুধু নওমি নয়, এখন একের পর এক অভিনেত্রী মুখ খুলছেন। গ্ল্যামার দুনিয়ায় পা দিতে গিয়ে কিংবা পা দেয়ার পর তাদের বিভিন্ন সময়ে কীভাবে পরিচালক, প্রযোজক ও অন্যদের লালসার শিকার হতে হয়েছে, সেসব অভিজ্ঞতা খোলাখুলি জানাচ্ছেন। অনেকে অভিযুক্তদের নাম প্রকাশ্যে আনছেন। আবার কেউ নাম গোপন রেখে অভিজ্ঞতাটা শেয়ার করছেন।

আবার শুধু অভিনেত্রী নয়, যারা ক্যামেরার পেছনে কাজ করেন, তাদেরও নানা সময় বস বা সিনিয়র সহকর্মীদের দ্বারা যৌন হেনস্তার শিকার হতে হয়। সেসব অভিজ্ঞতার কথাও প্রকাশ্যে আনছেন অনেকে। কাজ হারাতে পারেন- এমন সম্ভাবনার কথা মাথায় রেখেও অনেক প্রভাবশালী ব্যক্তির নাম সামনে আনছেন গ্ল্যামার জগতের নারীরা।

খবরটি গুরুত্বপূর্ণ মনে হলে পেজে লাইক দিয়ে সাথে থাকুন